ফেসবুক মাতাচ্ছে তিসার গান

September 13, 2017, 7:17 PM, Hits: 1029

ফেসবুক মাতাচ্ছে তিসার গান

হ-বাংলা নিউজ:  রাঙামাটি শহরের ভালেদী আদামে বাড়ির পাশে তিসা দেওয়ান। গতকাল বিকেলে তোলা ছবি l সুপ্রিয় চাকমা

বছর সতেরোর তিসা দেওয়ান। চেহারায় এখনো কৈশোরের সারল্য। হাতে গিটার। মিষ্টি কণ্ঠে গেয়ে চলেছে তাহসানের গান—‘তুমি আর তো কারো নও শুধু আমার... আলো আলো আমি কখনো খুঁজে পাব না।’ মাত্র ৩ মিনিট ১৮ সেকেন্ডের ভিডিও। ফেসবুকে আপলোড হতেই ভাইরাল। এখন ফেসবুকের পর্দায় সমানে দেখা হচ্ছে ভিডিওটি।

গত ৩১ আগস্ট কৃষ্ণমনি চাকমা নামের এক তরুণের আইডি থেকে আপলোড হওয়ার পর গতকাল বুধবার রাত নয়টা পর্যন্ত এটি দেখা হয়েছে ৫ লাখ ৪১ হাজার ৬৩৩ বার। রাতারাতি ‘তারকা’ বনে গেছে রাঙামাটির মেয়ে তিসা। শুধুই তাহসানের নয়, একই সময় তার আরও একটি গানের ভিডিও আপলোড হয়। এতে সে গায় কুমার শানু ও সাধনা সরগমের গান—‘যাব কইয়ি বাত বিগাড় যাইয়ে’। এটিও দেখা হয়েছে ১ লাখ ১৪ হাজার ৬৬৬ বার।

তিসার বাড়ি রাঙামাটি শহরের ভালেদী আদাম এলাকায়। কাপ্তাই লেক ঘেঁষা ছোট্ট কুটির তাদের। মা-বাবা ও তিন বোনের সংসার। তিসা সবার ছোট। পড়ছে রাঙামাটির সরকারি কলেজের উচ্চমাধ্যমিকের প্রথম বর্ষে।

গতকাল বিকেলে প্রথম আলোর রাঙামাটি প্রতিনিধি ভালেদী আদামের বাড়িতে গেলে কথা হয় তিসার সঙ্গে। শুরুতে ফেসবুক প্রসঙ্গ। তিসা বলল, ‘প্রায় সময় আমার গাওয়া গানের ভিডিও করে ফেসবুকে আপলোড করা হয়। এবারও তা হয়েছে। কিন্তু এমন সাড়া পড়বে কল্পনাতেও ছিল না। সাড়া পেয়ে খুব ভালো লাগছে।’

তাহসান ও কুমার শানুর গান কেন? তিসার উত্তর, ‘দুজনের গান আমার খুবই প্রিয়।’

ইতিমধ্যে তিসার গানের খবর পৌঁছেছে শিল্পী তাহসানের কানেও। ফেসবুকে নিজের ওয়ালে গানটি শেয়ার করেন তিনি। ইনবক্সে শুভেচ্ছা জানান তিসাকে।

তিসার কাছে এটা বিরাট পাওয়া। উচ্ছ্বাসমাখা গলায় বলল, ‘আমি খুব খুশি। তাহসান ভাইয়া তাঁর সুর করা একটি গান আমাকে দিয়ে গাওয়াবেন বলেছেন।’

২০১২ সাল থেকে গান শিখছে তিসা। রাঙামাটি শিল্পকলা একাডেমিতে গানের তালিম নিচ্ছে। এ ছাড়া রাঙামাটিতে নিয়মিত অনুষ্ঠান করে। তিসার ভাষায়, ‘গান আমার সবটা জুড়ে। এইচএসসি পাস করে সংগীত নিয়েই পড়াশোনা করার ইচ্ছা আছে।’ তিসা আরও যোগ করে, ‘ভিডিওতে যে গিটারটি বাজিয়েছি। সেটা আমার টাকায় কেনা। টিউশনি ও গান গেয়ে যে আয় করেছি তা দিয়ে কিনেছি।’

মুঠোফোনে কথা হয় কৃষ্ণমনি চাকমার সঙ্গেও। তাঁর বাড়ি তিসাদের পাশাপাশি। তিনি বলেন, ‘গানটি দুটি শুনে বেশ ভালো লাগে। তিসার সঙ্গে আলাপ করে ফেসবুকে আপলোড করি। এরপর তো ব্যাপক সাড়া।’

তিসার গান শুনে ফেসবুকে অভিনন্দন আর শুভ কামনার জোয়ার বইছে। মন্তব্যের ঘরে কেউ লিখেছেন, ‘অসাধারণ’। কেউ বলছেন, ‘জোশ’। আবার অনেকে এগিয়ে যেতে প্রেরণা দিয়ে লিখেছেন, ‘সিক্রেট সুপারস্টার’। 

 
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ