পশ্চিমা সভ্যতার বাইরে সবই বর্বরতা

July 8, 2018, 3:35 AM, Hits: 120

পশ্চিমা সভ্যতার বাইরে সবই বর্বরতা

হ-বাংলা নিউজ :  যুক্তরাষ্ট্রের আগামী নভেম্বরের মধ্যবর্তী নির্বাচনে কানসাস অঙ্গরাজ্যে রিপাবলিকান প্রার্থী হতে যাচ্ছেন স্টিভ ফিৎজজেরাল্ড। পার্টির এক সভায় বলেছেন, ‘পশ্চিমা সভ্যতার বাইরে সবই বর্বরতা।’ খবর সিএনএন।

২ জুলাই লিভেনওয়ার্থ কান্ট্রি রিপাবলিকান-দলীয় এক পার্টিতে উপস্থিত ব্যক্তিদের উদ্দেশে ৩০ মিনিটের ভাষণে স্টিভ ফিৎজজেরাল্ড এ কথা বলেন। তিনি অবসরে যাওয়া রিপাবলিকান সিনেট সদস্য লিন জেনকিনসের আসনটি নিতে চাইছেন।

স্টিভ ফিৎজজেরাল্ড বলেন, ‘সব সময় আমাদের বলা হচ্ছে পশ্চিমা সভ্যতা বিশ্বের জন্য সমস্যা। তবে আমি বলব, পশ্চিমা সভ্যতার বাইরে সবই বর্বরতা। আমাদের জুডো-ক্রিশ্চিয়ান মূল্যবোধ হলো তা-ই, যা সভ্যতা। আর এটিই বিদেশি শক্তির আক্রমণের মুখে পড়ছে। একে খ্রিষ্টান সমাজও বলা যেতে পারে। একে আক্রমণ করা হচ্ছে। এই যে আমি এই বিষয়ে কথা বলছি, আমাকেও আক্রমণ করা হতে পারে।’ তিনি আরও বলেন, ‘গর্ভপাতের মতো বিষয়ের সঙ্গে পশ্চিমা সভ্যতার তুলনা করা যাবে না। আমাদের এটা পরিষ্কার করে বলতে হবে এবং স্বীকার করে নিতে হবে যে আমরা মানবতার কথা বলছি।’

তবে এটি স্টিভের প্রথম বিতর্কিত মন্তব্য নয়। এর আগেও বিতর্কিত মন্তব্য করে সংবাদের শিরোনাম হয়েছেন তিনি। চলতি বছরে ফিৎজজেরাল্ডের নামে ‘প্ল্যানড প্যারেন্টহুড’-এ অর্থ দান করেছিলেন একজন। ফিৎজজেরাল্ড ওই গ্রুপকে সাফ জানিয়ে দেন, ওই অর্থ দানে সমর্থন নেই তাঁর এবং ওই সংস্থাকে হিটলারের কুখ্যাত ডাচাও কনসেনট্রেশন ক্যাম্প সঙ্গে তুলনা করেন তিনি, যা ব্যাপকভাবে সমালোচিত হয়। প্ল্যানড প্যারেন্টহুড একটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান। এটি প্রজনন, যৌনস্বাস্থ্যসহ নানা বিষয়ে স্বাস্থ্যসেবা সরবরাহ করে। প্ল্যানড প্যারেন্টহুড পরিচালিত ক্লিনিকগুলোয় মূলত গর্ভপাত এবং যৌন রোগের চিকিৎসা হয়।

 

 
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ