ট্রাম্পের জরুরি অবস্থা বাতিল করবে সিনেট

March 5, 2019, 8:52 AM, Hits: 108

ট্রাম্পের জরুরি অবস্থা বাতিল করবে সিনেট

হ-বাংলা নিউজ : যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জাতীয় জরুরি অবস্থা জারির বিষয়টি বাতিল করতে যাচ্ছে সিনেট। গতকাল সোমবার এ আভাস দিয়েছেন রিপাবলিকান সিনেটর মিচ ম্যাককনেল। এটাই হবে প্রেসিডেন্টের জারি করা জরুরি অবস্থার বিরুদ্ধে প্রথম ভেটো। গতকাল বার্তা সংস্থা এএফপির খবরে এ তথ্য জানানো হয়।

মার্কিন সিনেটে রিপাবলিকানরা সংখ্যাগরিষ্ঠ। প্রতিনিধি পরিষদে আধিপত্য রয়েছে ডেমোক্র্যাটদের। ইতিমধ্যে প্রতিনিধি পরিষদ ট্রাম্পের জরুরি অবস্থা ঘোষণার বিরুদ্ধে প্রস্তাব পাস করে তা অনুমোদনের জন্য সিনেটে পাঠিয়েছে। খুব শিগগির সিনেটে এ প্রস্তাবের ওপর ভোট হবে।

সিনেটে রিপাবলিকানরা ৫৩-৪৭ আসনে এগিয়ে। কিন্তু চারজন রিপাবলিকান সিনেটর ট্রাম্পের ঘোষণা প্রতিহত করতে ডেমোক্র্যাটদের সমর্থন দিচ্ছেন।

তবে আরও কয়েকজন রিপাবলিকান ঘোষণা না দিলেও তাঁরা ট্রাম্পের এ সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে ভোট দেবেন বলে জানিয়েছেন। প্রেসিডেন্টের এভাবে নির্বাহী ক্ষমতা প্রয়োগকে তাঁরা অশোভন বলে মনে করছেন।

গত সপ্তাহের শেষে সিনেটর র‌্যান্ড পলের যোগ দেওয়ার মধ্য দিয়ে প্রকাশ্যে চারজন রিপাবলিকান সিনেটর প্রতিনিধি পরিষদে পাস হওয়া প্রস্তাবের পক্ষে অবস্থান নিয়েছেন। এই প্রস্তাব ট্রাম্পের টেবিলে পাঠানো হচ্ছে। ট্রাম্পের ঘোষণার বিরুদ্ধে ভেটো দিতে কংগ্রেসের দুটি কক্ষে আলাদাভাবে দুই–তৃতীয়াংশ ভোটের প্রয়োজন হবে।

এর আগে দেয়াল নির্মাণ নিয়ে বাজেট ইস্যুতে বিতর্কের জেরে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে রেকর্ডসংখ্যক ৩৫ দিন বন্ধ ছিল ফেডারেল সরকারের একাংশের কাজকর্ম (শাটডাউন)। পরে রাজনৈতিক চাপের কাছে নতি স্বীকার করে ফেডারেল সরকারের চাকা আবার সচল করেন তিনি। যে ইস্যুতে ডেমোক্র্যাটদের সঙ্গে ট্রাম্পের বাজেট বরাদ্দ নিয়ে দ্বন্দ্ব শুরু হয়েছে, সেই যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণে দাবিমতো অর্থ পাননি তিনি। রিপাবলিকান এই প্রেসিডেন্ট দেয়াল নির্মাণে ৫৭০ কোটি ডলার না পেলে কোনো ধরনের বাজেট নথিতে সই করবেন না বলে জানিয়েছিলেন। সীমান্তে দেয়াল নির্মাণের বিষয়টি তাঁর নির্বাচনী অঙ্গীকার ছিল। তবে প্রতিনিধি পরিষদের নিয়ন্ত্রণ নেওয়া ডেমোক্র্যাটরা ট্রাম্পের চাহিদা অনুযায়ী অর্থ দিতে অস্বীকৃতি জানান। মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণে অর্থ সংগ্রহে কংগ্রেসের অনুমোদন পেতে ব্যর্থ হয়ে ১৫ ফেব্রুয়ারি জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেন ট্রাম্প। জরুরি ক্ষমতা বলে তিনি কংগ্রেসকে পাশ কাটিয়ে সামরিক নির্মাণ প্রকল্প বা দুর্যোগ তহবিল থেকে তাঁর চাহিদামতো অর্থ সংগ্রহ করতে পারবেন।

গতকাল কেনটাকিতে সিনেটর ম্যাককনেল বলেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ঘোষণা অননুমোদন–সংক্রান্ত প্রস্তাবটি পাসে যথেষ্ট ভোট রয়েছে সিনেটে। তিনি জানান, জরুরি অবস্থা ঘোষণার পথে প্রেসিডেন্ট যাবেন না বলে আশা করেছিলেন তিনি। যদিও ট্রাম্পের এই পরিকল্পনায় সমর্থন দিতে দেখা গেছে ম্যাককনেলকে।

ভবিষ্যতে ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট এসে ট্রাম্পের স্থাপন করা পথ অনুসরণ করতে পারেন বলে আশঙ্কা রয়েছে সিনেটের। জলবায়ু পরিবর্তন, স্বাস্থ্যসেবা ও অস্ত্র নিয়ন্ত্রণের মতো ইস্যুতে ব্যবস্থা নিতে কংগ্রেসকে পাশ কাটিয়ে ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট এসে জরুরি অবস্থা জারি করতে পারেন। ম্যাককনেল বলেন, এই একটি যুক্তিতে তিনি মনে করেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের জরুরি অবস্থা জারির দিকে যাওয়া উচিত হয়নি। 

 
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ