লকডাউনের মধ্যেই বিয়ে করলেন নিতিন ও শালিনী

July 28, 2020, 9:26 AM, Hits: 96

লকডাউনের  মধ্যেই বিয়ে করলেন নিতিন ও শালিনী

হ-বাংলা নিউজ : লকডাউন আটকে রাখতে পারেনি তেলেগু তারকা নিতিন রেড্ডি আর শালিনী কান্দুকুরির বিয়ে। তাঁদের মিষ্টি প্রেমের ‘ওপেন সিক্রেট’ রসায়ন কারও অজানা ছিল না। দীর্ঘদিন প্রেম করার পর ২৩ জুলাই আয়োজন করে বাগদান হওয়ায় ভক্তদের অভিনন্দনবার্তায় ভরে ওঠে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম। আর ২৬ জুলাই বিয়ের পর সেসব ছবি ভাইরাল হয়ে ঘুরে বেড়াচ্ছে অনলাইনের দুনিয়ায়।

তেলেগু সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেতা নিতিন। চার বছরের প্রেমিকা শালিনীর সঙ্গে ‘ডেস্টিনেশন ওয়েডিংয়’–এর কথা ছিল ১৬ এপ্রিল, দুবাইয়ে। কিন্তু করোনা সেসব ভুলিয়ে বিয়ের তারিখ পিছিয়ে আনল। অবশেষে লকডাউনেই বিয়ে সারলেন এই তারকা। হায়দরাবাদে এই অভিনেতার বাড়িতেই হয়েছে বাগদানের অনুষ্ঠান। সমস্ত নিয়ম ও সতর্কতা মেনে এতে ঘনিষ্ঠ আত্মীয় ও বন্ধুরা উপস্থিত ছিলেন।

হায়দরাবাদের বিখ্যাত মার্বেল রাজপ্রাসাদ ‘তাজ ফলকনামা প্যালেস’–এ অনুষ্ঠিত হয় তাঁদের বিয়ের সমস্ত আনুষ্ঠানিকতা। এটি বিশ্বের সবচেয়ে বড় ও ঐতিহ্যবাহী খাবারঘরগুলোর অন্যতম।

১২৮ বছরের পুরোনো ৩২ একর আয়তনের প্যালেসজুড়ে রয়েছে ২২টি হলঘর ও ৬০টি কক্ষ। এখানেই স্বাস্থ্যবিধি মেনে দুই পরিবারের ঘনিষ্ঠজন, বন্ধুবান্ধব ও দক্ষিণ ভারতের ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির বেশ কিছু তারকাও অংশ নিয়েছেন আলো ঝলমলে সেই আয়োজনে। ভক্তরা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বাগদান, গায়েহলুদ, মেহেদি, বিয়ে আর সংবর্ধনার ছবি শেয়ার করে এই জুটির নতুন দাম্পত্য জীবন নিয়ে জানিয়েছেন শুভকামনা।

দুই তারকাদের অভিনন্দন জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রাকুল প্রীত, রানা ডাগুবতি, সাঁই ধর্ম তেজ, রাশি খান্না, লক্ষ্মী মাঞ্চুসহ আরও অনেকে বার্তা দিয়েছেন। রাকুল প্রীত টুইট করেছেন, ‘অভিনন্দন টিনটিন...তোমার জন্য শুভকামনা...সৃষ্টিকর্তা তোমাদের দুজনকে মঙ্গল করুন!’ সাঁই ধর্ম তেজ লিখেছেন, ‘অভিনন্দন, প্রিয়তম!’

৩৭ বছর বয়সী নিতিন বড় পর্দায় তাঁর ক্যারিয়ার শুরু করেন ২০০২ সালে ‘জায়াম’ সিনেমার মধ্য দিয়ে। ‘দিল’, ‘শ্রী আনজানেয়াম’, ‘তাক্কারি’, ‘সিথারামুলা কল্যানাম’, ‘ভিক্টরি’, ‘ইশক’, ‘চিন্নাদাম নি কোসাম’, ‘আ আ’, ‘লাই’ প্রভৃতি সিনেমার মাধ্যমে তিনি দক্ষিণ ভারতের শীর্ষ তারকাদের একজন হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেন। নিতিনকে সর্বশেষ দেখা গেছে, ২০২০ সালের ‘ভিসমা’ ছবিতে। এরপর তাঁকে দেখা যাবে রং দে ও চন্দ্র শেখর ইলেতির পরিচালনায় আরেকটি ছবিতে।

 
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ